নির্বাচনে জয়ের পরদিনই খালেদার মুক্তি, কাদের সিদ্দিকী

জুয়েল আনন্দ(বাংলাদেশ) : নির্বাচনী সভায় জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নেতাদের সঙ্গে কাদের সিদ্দিকী ধানের শীষের প্রার্থীদের ভোট দেওয়ার আহ্বান জানিয়ে নির্বাচনের পরদিনই বাংলাদেশের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়াকে কারাগার থেকে মুক্ত করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী।শুক্রবার টাঙ্গাইলে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নেতাদের এক নির্বাচনী সভায় এই ঘোষণা দেন কাদের সিদ্দিকী।

তিনি বলেন, “৩০ ডিসেম্বর আপনারা সকলে ভোটকেন্দ্রে আসবেন, ভোট দেবেন। আমি কথা দিচ্ছি, ৩১ ডিসেম্বর খালেদা জিয়া মুক্ত হয়ে আসবেন অথবা নতুন বছরের প্রথম দিন তিনি কারাগার থেকে বেরিয়ে আসবেন।”

জিয়া এতিমখানা ট্রাস্ট ও জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় আদালতের রায়ে ১৭ বছরের কারাদণ্ড নিয়ে পুরান ঢাকার কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি আছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। দুই বছরের বেশি সাজা হওয়ায় নির্বাচনে প্রার্থী হতে পারেননি তিনি। পাঁচ বছর আগে একাদশ সংসদ নির্বাচন বর্জনকারী বিএনপি এবারও নির্বাচনের আগে খালেদা জিয়ার মুক্তিসহ বেশ কয়েকটি দাবি জানিয়েছিল। তবে সরকারের পক্ষ থেকে বলা হয়, আদালতের রায়ে দণ্ডিত খালেদা জিয়ার মুক্তি আদালতের সিদ্ধান্তের বিষয়, এখানে তাদের কিছু করার নেই।
খালেদার ‍মুক্তি ও নির্দলীয় সরকারের দাবি পূরণ ছাড়াই নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে বিএনপি। তাদের সঙ্গে জোট বেঁধে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের ব্যানারে ধানের শীষ প্রতীকেই এবার ভোটের মাঠে রয়েছে কামাল হোসেনের গণফোরাম, কাদের সিদ্দিকীর কৃষক-শ্রমিক-জনতা লীগ, মাহমুদুর রহমান মান্নার নাগরিক ঐক্য ও আসম আব্দুর রবের জেএসডির নেতারা।

দুর্নীতি মামলায় দণ্ডিত হয়ে গত ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে পুরান ঢাকার কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি আছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। দুর্নীতি মামলায় দণ্ডিত হয়ে গত ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে পুরান ঢাকার কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি আছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। ঋণ খেলাপের কারণে মনোনয়নপত্র বাতিল হওয়ায় কাদের সিদ্দিকী এবার নির্বাচনে প্রার্থী হতে না পারলেও তার মেয়ে কুঁড়ি সিদ্দিকীসহ তার দলের পাঁচ নেতা ধানের শীষ প্রতীকে ভোটের লড়াইয়ে আছেন।

ভোটারদের উদ্দেশে কাদের সিদ্দিকী বলেন, “৩০ ডিসেম্বর আপনার একটি ভোটে খালেদা জিয়ার মুক্তি হতে পারে। ৩০ ডিসেম্বর আপনার একটি ভোটে গণতন্ত্র ফিরে আসতে পারে। ৩০ ডিসেম্বর আপনার একটি ভোটে এই স্বৈরশাসনের অবসান ঘটতে পারে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here